22 September 2019

বিধবা মুসলিম নারীকে গণধর্ষণঃ মূল হোতা হিন্দুত্ববাদি এএসআই সুজন চন্দ্র দাশকে প্রত্যাহার


স্টাফ রিপোর্টার।। সাধারণ ডায়েরির তদন্তের নামে এক বিধবা মুসলিম নারীকে আটকে রেখে ধর্ষণে জড়িত থাকার অভিযোগে ফেনীর সোনাগাজী থানার হিন্দুত্ববাদি এএসআই সুজন চন্দ্র দাশকে প্রত্যাহার করা হয়েছে। ঘটনা তদন্তে ৩ সদস্যের কমিটি গঠন করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৯ সেপ্টেম্বর) জেলার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট তানিয়া হোসেনের আদালতে দেয়া জবানবন্দিতে ওই পুলিশ সদস্যের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ করেন নির্যাতিতা। আদালত সূত্র জানায়, জমিজমা সংক্রান্ত একটি সাধারণ ডায়েরির তদন্তের দায়িত্ব পা এএসআই সুজন চন্দ্র দাশ।

তদন্তের জন্য গত ১৫ সেপ্টেম্বর তাকে থানায় ডাকা হয়। গড়িমসির কারণে রাত হওয়ায় থানার পাশেই রহিমার বাসায় তাকে থাকতে বলা হয়। রাতে রহিমার সহযোগিতায় তাকে ধর্ষণ করে সুজন চন্দ্র। এরপর স্থানীয় আরও কয়েক বখাটের হাতে গণধর্ষণের শিকার হন নির্যাতিতা।

এ ঘটনায় থানায় মামলা হলেও সেসময় পুলিশের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেননি তিনি। তবে তদন্ত কমিটির রিপোর্টের পর অভিযুক্ত পুলিশের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেয়ার আশ্বাস দিয়েছেন ফেনী সহকারী পুলিশ সুপার সাইকুল আহমেদ।


শেয়ার করুন

1 comment:

  1. বিধবা মুসলিম নারীকে গণধর্ষণঃ মূল হোতা হিন্দুত্ববাদি ASI সুজন চন্দ্র দাশ।

    আওয়ামী ইসলাম হিন্দু দিয়ে মুসলিম ধর্ষণ। সাধারণ ডায়েরির তদন্তের নামে এক বিধবা মুসলিম নারীকে আটকে রেখে ফেনীর সোনাগাজী থানার ASI সুজন চন্দ্র দাশ কর্তৃক ধর্ষণ।

    ReplyDelete